ই-পেপার সোমবার ১৪ নভেম্বর ২০২২
সদস্য হোন |  আমাদের জানুন |  পডকাস্ট |  গুগলী |  ডিসকাউন্ট শপ
সোমবার ২২ এপ্রিল ২০২৪ ৯ বৈশাখ ১৪৩১
আমেরিকা টপে, দ্বিতীয় চীন! খেল দেখাল ভারত, প্রকাশ্যে বিশ্বের সেরা শক্তিশালী দেশের তালিকা
নতুন সময় ডেস্ক
প্রকাশ: Thursday, 4 April, 2024, 5:43 PM

আমেরিকা টপে, দ্বিতীয় চীন! খেল দেখাল ভারত, প্রকাশ্যে বিশ্বের সেরা শক্তিশালী দেশের তালিকা

আমেরিকা টপে, দ্বিতীয় চীন! খেল দেখাল ভারত, প্রকাশ্যে বিশ্বের সেরা শক্তিশালী দেশের তালিকা

কে বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী দেশ আর কে দূর্বল, এই নিয়ে চর্চা চলতেই থাকে। সামরিক শক্তির পাশাপাশি অর্থনৈতিক দিক দিয়ে কার অবস্থান কোথায় সেটাও খতিয়ে দেখা হয়। কারণ একটি দেশের উন্নতিতে সেই দেশের রাজনৈতিক প্রভাব এবং অর্থনৈতিক অবস্থান গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। যে কারণে প্রতি বছরই বিশ্বের সেরা শক্তিশালী দেশের তালিকা প্রকাশ করা হয়। এবছরও বিশ্বের শীর্ষ ক্ষমতাধর দেশগুলোর র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করেছে ইউএস নিউজ।

পেনসিলভানিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের হোয়ার্টন স্কুলের অধ্যাপক ডেভিড রিবস্টেইনের নেতৃত্বে গবেষকরা ইউএস নিউজ অ্যান্ড ওয়ার্ল্ড রিপোর্টের সহযোগিতায় এই তালিকা তৈরি করেছে। এবং এই র‌্যাঙ্কিংয়ে মার্চ অবধি GDP উপর ভিত্তি করে অর্থনীতি এবং জনসংখ্যার উপর বিশেষভাবে নজর দেওয়া হয়েছে। এখন চলুন দেখে নিই, কোন দেশ কোন জায়গায়? এবং আমাদের ভারত কত নম্বরে স্থান দখল করেছে?


প্রথমেই বলি, ২৭.৯৭ ট্রিলিয়ন ডলারের অর্থনীতি নিয়ে এই তালিকায় শীর্ষে রয়েছে আমেরিকা। যেখানে আমেরিকার জনসংখ্যা ৩৩৯.৯ মিলিয়ন। তালিকার দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে চীন। দেশটির জনসংখ্যা ১.৪২ বিলিয়ন। যেখানে দেশটির অর্থনীতি ১৮.৫৬ ট্রিলিয়ন ডলার। অন্যদিকে তালিকার তৃতীয় স্থানে রয়েছে রাশিয়া। ১৪৪ মিলিয়ন জনসংখ্যা নিয়ে দেশটির অর্থনীতি এখন ১.৯০ ট্রিলিয়ন ডলার‌। যেখানে ৪.৭০ ট্রিলিয়ন ডলার অর্থনীতি এবং ৮৩.২ মিলিয়ন জনসংখ্যা নিয়ে চতুর্থ স্থানে রয়েছে জার্মানি।

অন্যদিকে জার্মানির চেয়েও বেশি পিছিয়ে পড়েছে গ্রেট ব্রিটেন। ৩.৫৯ ট্রিলিয়ন ডলার অর্থনীতি এবং ৬৭.৭ মিলিয়ন জনসংখ্যা নিয়ে পঞ্চম স্থানে রয়েছে ব্রিটেন। তালিকার ছয় নম্বরে জায়গা করে নিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া, দেশটির জনসংখ্যা ৫১.৭ মিলিয়ন এবং অর্থনীতি ১.৭৮ ট্রিলিয়ন ডলার। ফ্রান্সের অর্থনীতি ৩.১৮ ট্রিলিয়ন এবং ৬৪.৭ মিলিয়ন জনসংখ্যা নিয়ে দেশটি রয়েছে সপ্তম স্থানে।

অন্যদিকে জাপান রয়েছে অষ্টম স্থানে। এককালে দ্বিতীয় স্থানে থাকা জাপানের অর্থনীতি এখন ৪.২৯ ট্রিলিয়ন, যেখানে দেশটির জনসংখ্যা এখন ১২৩.২ মিলিয়ন। ১.১১ ট্রিলিয়নের অর্থনীতি এবং ৩৬.৯ মিলিয়ন জনসংখ্যা নিয়ে দেশটি রয়েছে নবম স্থানে। যেখানে সংযুক্ত আরব আমিরাতের অর্থনীতি ৫৩৬.৮৩ বিলিয়ন এবং দেশটির জনসংখ্যা ৯.৫১ মিলিয়ন। তালিকার দশম স্থানে রয়েছে দেশটি।

উল্লেখ্য যে, ভারত সেরা ১০ এর তালিকায় জায়গা করে নিতে সক্ষম না হলেও ১২ নম্বরে জায়গা করে নিয়েছে। ইজরায়েলের পরেই জায়গা হয়েছে ভারতের। ভারতের জনসংখ্যা যেখানে প্রায় ১৫০ কোটি, সেখানে দেশের অর্থনীতি ৩.৩৯ ট্রিলিয়ন ডলার। উল্লেখ্য, একটি দেশের জনসংখ্যা, কর্মক্ষম সমাজ, শিক্ষা এবং জনসংখ্যার দক্ষতা একটি দেশের শক্তিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে।

পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: নাজমুল হক শ্যামল
দৈনিক নতুন সময়, গ্রীন ট্রেড পয়েন্ট, ৭ বীর উত্তম এ কে খন্দকার রোড, মহাখালী বা/এ, ঢাকা ১২১২।
ফোন: ৫৮৩১২৮৮৮, ০১৯৯৪ ৬৬৬০৮৯, ইমেইল: info@notunshomoy.com
কপিরাইট © দৈনিক নতুন সময় সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | Developed By: i2soft
DMCA.com Protection Status